বগুড়ায় গণপিটুনিতে গরু চোরের মৃত্যু

বগুড়া প্রতিনিধি:
বগুড়ার নন্দীগ্রামে গরু চুরি করতে গিয়ে ধরা খেয়ে গণপিটুনিতে উজ্জল হোসেন (৩২) নামে এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। নিহত উজ্জল হোসেন উপজেলার রায়পাড়া গ্রামের মৃত নইমুদ্দিনের ছেলে।
১০ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার গভীর রাতে নন্দীগ্রাম উপজেলার ভাটরা ইউনিয়নের শেখের মারিয়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।
জানা গেছে, ১০ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১২টার দিকে উপজেলার শেখের মারিয়া গ্রামের বেলাল হোসেনের গোয়াল ঘরের তালা কেটে উজ্জল হোসেনসহ তার সঙ্গীরা ভিতরে ঢুকে একটি গাভী গরু চুরি করছিল। এ সময় বাড়ির মালিক টের পেয়ে চিৎকার দেন। চিৎকার শুনে এলাকাবাসী ধাওয়া করলে অন্যরা পালিয়ে গেলেও উজ্জলকে ধরে গণপিটুনি দিতে থাকে। এতে ঘটনাস্থলেই ওই চোরের মৃত্যু হয়।

এ ব্যাপারে ভাটরা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোরশেদুল বারী বলেন, গণপিটুনিতে উজ্জল হোসেনের মৃত্যু হয়েছে। তার বিরুদ্ধে নন্দীগ্রামসহ বিভিন্ন থানায় হত্যা ও ডাকাতি মামলা রয়েছে। রাতেই থানা পুলিশ তার মরদেহ উদ্ধার করে নিয়ে গেছে।
এ প্রসঙ্গে নন্দীগ্রাম থানার অফিসার ইনচার্জ শওকত কবীর জানান, গরু চুরি করতে গিয়ে একজন গণপিটুনীতে মারা যায়। মৃত ব্যাক্তি মরদেহ উদ্ধার করে মর্গে পাঠানো হয়েছে। এব্যাপারে আইনী ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *