শেরপুরে কয়েরখালী হাটের জায়গায় অবৈধ দখল

স্টাফরিপোর্টার:রাজনৈতিক নেতার ছত্র ছায়ায় বগুড়ার শেরপুর উপজেলার খানপুর ইউনিয়নের কয়েরখালী হাটের জায়গা জবরদখল করে স্থায়ী ভাবে অবৈধ স্থাপনা নির্মান করায় স্থানীয় ১২ জন অবৈধ দখল দারের বিরুদ্ধে শেরপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. লিয়াকত আলী সেখ এর কাছে লিখিত অভিযোগ দেয়া হয়েছে।
অভিযোগে সুত্রেজানাগেছে, ১১৩৫ ও ১৪৭৮ দাগে কয়েরখালী হাটের মোট ৭৬ শতক জায়গায় প্রায় অর্ধেক অংশ সরকারের বেদখলে চলে গেছে। শেরপুর উপজেলার খানপুর ইউনিয়ন পরিষদের পাশেই সরকারি হাটের জায়গায় কয়েরখালী সাপ্তাহিক হাট ও বাজার বসে থাকে। সরকারি ভাবে হাটের জায়গায় ১৪২৭ বাংলা সালে এক বছরের জন্য অস্থায়ী ইজারা বন্দোবস্ত দেয়া হয়।
কয়েরখালী হাটের সরকারি জমিতে খানপুর গ্রামের জনৈক বাদশা মিয়া এবং লুৎফর রহমান অবৈধ ভাবে জবর দখল করে প্রায় ২০ হাত লম্বা একটি স্থায়ী ঘর নির্মান করেছেন। এছাড়াও একই কায়দায় খানপুর এলাকার আবুল কাশেম, ছবের আলী,ফরহাদ হোসেন, মেরাজ আকন্দ, গোলাম মোস্তাফা, ফারুক হোসেন, আরিফ হোসেন, নলবাড়িয়া গ্রামের রহমত আলী, শফি উল্লাহ সরকারি জায়গা নিজেদের দখলে নিয়ে নিজ নিজ ঘর নির্মান করেছেন। কেউ কেউ হাটের জায়গা নিজ মালিকানা দাবি করে দোকান ঘর ভাড়া দিয়েছেন।
এ ব্যাপারে শেরপুর উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভুমি) জামশেদ আলাম রানা’র সাথেযোগাযোগ করলে তিনি বলেন, লিখিত অভিযোগ পাওয়া গেছে। খুব দ্রুত সময়ে তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *