সিরাজদিখানে মধ্যরাতে যুবককে কুপিয়ে যখমের ঘটনায় গ্রেপ্তার-০৩

সিরাজদিখান (মুন্সিগঞ্জ) প্রতিনিধিঃ
মুন্সিগঞ্জের সিরাজদিখানে মধ্য রাতে সোলাইমান সরদার রনি (৩২) নামে এক যুবককে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে জখম করার ঘটনায় ৩ জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। সিরাজদিখান থানার এস,আই বিজয় কৃষ্ণ কর্মকার ঢাকা জেলার যাত্রাবাড়ী থেকে অভিযান পরিচালনা করে শাওন (২৫) ও মিজান (২৬) নামে দুইজনকে গ্রেপ্তার করেন। শাওন উপজেলার রশুনিয়া ইউনিয়নের হিরনের খিলগাঁও গ্রামের আনোয়ার হোসেনের ছেলে এবং মিজান বরিশাল জেলার বাবুগঞ্জ উপজেলার কলাডামা গ্রামের সুলতান চাপরাশির ছেলে। গ্রেপ্ততারকৃতদের বিরুদ্ধে নিয়মিত মামলা রুজু করে কোর্টে প্রেরণ করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত ২২ মে বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত পৌনে ২ টার দিকে উপজেলার ইছাপুরা ইউনিয়নের পূর্ব রাজদিয়া গ্রামে ওই যুবকের বাড়ীতে এ ঘটনা ঘটে। পরে রক্তাক্ত অবস্থায় ওই যুবককে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসার জন্য নেয়া হলে হাসপাতালে কর্তব্যরত চিকিৎসক অবস্থা আশঙ্কাজনক দেখে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করেন। এদিকে ঘটনার সাথে জড়িত তাহসিন নামে ১৪ বছরের কিশোরকে ঘটনাস্থল থেকে আটক করে পরদিন (২৩ মে) শুক্রবার সকালে পুলিশে সোপর্দ করেছে স্থানীয়রা। সে চট্টগ্রাম জেলার সাতকানিয়া উপজেলার কাঞ্চনা গ্রামের মো. জিয়ার ছেলে। এ ঘটনায় সিরাজদিখান থানায় লিখিত অভিযোগের প্রেক্ষিতে নিয়মিত মামলা রুজু করা হয়েছে। সোলাইমান সরদার রনি পূর্ব রাজদিয়া গ্রামের মৃত মো. ফারুক সরদারের ছেলে।

সিরাজদিখান থানার এস,আই বিজয় কৃষ্ণ কর্মকার জানান, বাদীর লিখিত অভিযোগের প্রেক্ষিতে নিয়মিত মামলা রুজু করা হয়। স্থানীয় লোকজনের সোপর্দকৃত আসামীর দেখানো মতে ঘটনার সাথে জড়িত আরো দুইজনকে ঢাকাস্থ যাত্রাবাড়ী থেকে শাওন ও মিজানকে গ্রেপ্তার করা হয়। তাদের ৩ জনকে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *