শেরপুরে ছাত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টায় মামলা ॥ আটক ১

স্টাফরিপোর্টার:
বগুড়ার শেরপুরের চকখাগা গ্রামে তৃতীয় শ্রেনীর ছাত্রীকে জোর করে ঘরের মধ্যে নিয়ে ধর্ষণের চেষ্টায় গত বুধবার রাতে শেরপুর থানায় একটি মামলা দায়ের হয়েছে।
মামলার প্রেক্ষিতে হাফিজার রহমান ওরফে মুন্টু ঠ্যাটারু (৬৫) আটক করেছে থানা পুলিশ।
জানা যায়, উপজেলার খানপুর ইউনিয়নের চকখাগা গ্রামের শাহিন আলম ও তার স্ত্রী কল্পনা খাতুন ২ বছর যাবৎ ঢাকায় অবস্থান করছে। তাদের তাদের ৯ বছরের মেয়ে গ্রামে দাদীর কাছে থেকে চকখাগা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে তৃতীয় শ্রেনীতে লেখাপড়া করছে। করোনা ভাইরাস ও পবিত্র মাহে রমজান উপলক্ষে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় ওই শিশু ছাত্রী বাড়ির পাশে খেলা করার জন্য যাচ্ছিল। গত বুধবার সকাল হাফিজার রহমান ওরফে মুন্টু ঠ্যাটারু তাকে টেনে ছেলে বেলাল হোসেনের ঘরে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণের চেষ্টা করে।
বৃদ্ধ লম্পটের হাত থেকে বাঁচতে ওই ছাত্রী চিৎকার দিলে পালিয়ে যায়। পরে কাঁদতে কাঁদতে বাড়িতে গিয়ে তার দাদীকে বিষয়টি খুলে বলে। পরে ওইদিন রাতেই দাদী সাহেদা বেগম বাদি হয়ে শেরপুর থানায় একটি ধর্ষণ চেষ্টার মামলা দায়ের করেন। মামলার প্রেক্ষিতে শেরপুর থানা পুলিশ ওই রাতেই হাফিজার রহামন ওরফে মুন্টু ঠ্যাটারুকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে।
এ ব্যাপারে শেরপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মো. হুমায়ুন কবীর বলেন, মামলার প্রেক্ষিতে আটক করে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *