বগুড়ার নন্দীগ্রামে শিলাবৃষ্টিতে ফসলের ব্যাপক ক্ষতি

রাজিবুল ইসলাম রক্তিম ,বগুড়া থেকে।।
বগুড়ার নন্দীগ্রামে শিলাবৃষ্টিতে ফসলের ব্যাপক ক্ষতি সাধন হয়েছে। ২২শে এপ্রিল হঠাৎ এ উপজেলায় কালবৈশাখী ঝড় ও শিলাবৃষ্টিপাত হয়। এতে পাকা বোরো ধানসহ বিভিন্ন ফসলের ব্যাপক ক্ষতি সাধন হয়েছে। জানা গেছে, ২২শে এপ্রিল বেলা ২টার দিকে উপজেলার মণিনাগ, ভরতেঁতুলিয়া, ভরমাজগ্রাম, রুপিহার, রায়পাড়া, নামুইট, ডেরাহার, ভাদুম, গোছন, হাটলাল, তেঘর, কৈডালা ও শহরকুড়িসহ বিভিন্ন গ্রামে কালবৈশাখী ঝড় ও শিলাবৃষ্টিপাত হয়েছে। এতে লোকজন অনেকটা আতঙ্কিত হয়ে পড়ে।
কালবৈশাখী ঝড় ও শিলাবৃষ্টির কারণে উপজেলার শতাধিক বসত বাড়ির টিন ছিদ্র হয়ে গেছে। আরো ক্ষতি হয়েছে আম এবং লিচুসহ অন্যান্য ফল ও গাছপালার। তবে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত হতাহতের কোনো খবর পাওয়া যায়নি। ৩নং ভাটরা ইউনিয়ন পরিষদের ৯নং ওয়ার্ডের সদস্য জাহাঙ্গীর আলম বলেন, এ এলাকায় ব্যাপক কালবৈশাখী ঝড় ও শিলাবৃষ্টি হয়েছে। এতে ধানসহ বিভিন্ন ফসলের ক্ষতি সাধন হয়। এ ছাড়াও বসত বাড়ি ও গাছপালার ক্ষতি সাধন হয়েছে। এ বিষয়ে উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মো. আদনান বাবু বলেন, নন্দীগ্রাম উপজেলায় ২০ হাজার ১৫৫ হেক্টর জমিতে বোরো ধানের চাষাবাদ করা হয়েছে। কালবৈশাখী ঝড় ও শিলাবৃষ্টির কারণে ধানসহ বিভিন্ন ফসলের কিছুটা ক্ষতি হতে পারে। তবে আর কোনো প্রাকৃতিক দুর্যোগ না হলে কাটামাড়াইয়ের কাজ শেষে কৃষকরা ভালোভাবেই ফসল ঘরে তুলতে পারবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *