মহামাড়ি চলাকালীন সময়ে বাড়ি ভাড়া না নেওয়া প্রসঙ্গে

করোনায় বাড়ি ভাড়া ফ্যাক্ট:
রাজধানী অনেকটাই জন মানব শুন্য হয়ে পড়েছে। গত তিন দিনেই মহল্লার প্রায় ৩০শতাংশ বাড়ি খালি হয়ে গেছে। আর নগরীর ৫০ শতাংশ চাকুরীজীবি মানুষ বাড়ি ভাড়া দেওয়ার নিয়ে সংশয়ে আছে। ভাবছেন নতুন মাস এপ্রিলের বাড়ি ওয়ালাকে না করে দেওয়ার কথা। থাকলে বাড়ি ভাড়া দিতেই হবে। কোম্পানী গুলো ১০০% বেতন ভাত দিবে কি না তা ও প্রশ্ন উঠছে অনেকের মনে মনে। আর যদি কোরোনার কারনে প্রতিষ্ঠান গুলো দীর্ঘ সময় বন্ধ রাখতে হয় তাহলে তো কথাই নেই। রাষ্ট্র প্রধান ইতিমধ্যেই বলেই দিয়েছেন- শুধুমাত্র রপ্তানী মুখী প্রতিষ্ঠানের বেতন ভাতার কথা। এখন বিষয় হলো বাড়ি ভাড়া কারনে নগরীতে আরও প্রায় ৫০% নি¤œ বিত্ত বা মধ্য বিত্ত দের ভাড়া থাকা দায় হয়ে পড়তে পারে। প্রয়োজন রাস্ট্রীয় সিদ্ধান্তে পাশাপাশি বাড়ি ওয়ালাদের সদিচ্ছা।মহামাড়ি চলাকালীন সময়ে ৮ হাজার থেকে ১৫ টাকা সমমুল্যের ভাড়াটিয়াদের নুন্যতম ৫০% বাড়ি ভাড়া না নেওয়া। এবং কমাশিয়াল এলাকায় ২০ হাজার থেকে ৫০হাজার টাকা সমুল্যের অফিস ভাড়া নুন্যতম ৫০% বাড়ি ভাড়া না নেওয়া।

মিরপুর মধ্যমনিপুর থেকে রাবিক হাসান (বাবু)

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *