বগুড়ায় আবারো ম্যানুয়াল পদ্ধতিতে করতোয়া নদীর অবৈধ দখল উচ্ছেদ শুরু

বগুড়া প্রতিনিধি।।
বগুড়ায় আবারো উচ্ছেদ অভিযান শুরু করা হয়েছে। সারাদেশে একযোগে নদ/নদী খাল বিলে অবৈধ দখল উচ্ছেদ অভিযানের অংশ হিসেবে বগুড়াতেও করতোয়া নদীকে অবৈধ দখলের হাত থেকে রক্ষা করতে শুরু করা হলো উচ্ছেদ কার্যক্রম।

সোমবার সকাল ১০টা থেকে পানি উন্নয়ন বোর্ড ও ভুমি মন্ত্রনালয়ের যৌথ উদ্যোগে শুরু হওয়া এই উচ্ছেদ অভিযানের সময় জেলা প্রশাসক ফয়েজ আহমদ, এডিসি (রেভিনিউ) আব্দুল মালেক , এসি ল্যান্ড বীর আমির হামজা এবং পানি উন্নয়ন বোর্ডের শীর্ষ কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন ।

সমপূর্ন ম্যানুয়াল পদ্ধতিতে অর্থাৎ শ্রমিক দিয়ে গতরে হাতে শুরু করা উচ্ছেদ অভিযানে মোট ১৬টি অবৈধ দখলদার, বাড়ি, দোকান, হোটেল ও অফিসের মধ্যে যেগুলো টিন সেড এবং সেমি পাকা সেগুলো বিকেলের মধ্যেই উচ্ছেদ হয়ে যায়।
বিকেলের পর বগুড়া শহরের বৃহত্তম কাঁচা মালের আড়ত রাজাবাজারের সোহরাব হোসেনের মালিকানাধীন একটি ৬ তলা ভবন, আরতী রানী প্রসাদের ৫ তলা ভবন এবং সোহরাব হোসেনের ৪ তলা ভবনের ভাংগা কাজ শুরু হয়েছে ।

বগুড়া পানি উন্নয়ন বোর্ডের এসডিই শফিকুল আলম জানিয়েছেন , পানি উন্নয়ন বোর্ডের নিয়োজিত ৪০ জন দক্ষ শ্রমিক মোটামুটি ভাবে অভিযানের প্রথম দিনেই শেষ করা হবে। তবে বহুতল ভবন ভাঙার কাজ সম্পন্ন করতে কয়েকদিন সময় লাগতে পারে বলে তিনি আভাস দেন।

উল্লেখ্য,বগুড়ায় উচ্ছেদের নামে মাঝে মধ্য সংশ্লিষ্টদের অভিযান শুরু করা হলেও তা বারং বার থেমে যায় । সচেতন বগুড়া বাসী এবং সচেতন মহল এর দাবী কোন প্রশ্ন উথ্থাপনের সুযোগ না রেখে উচ্ছেদের নামে মাঝে মধ্য নয়, লাগাতার ভাবে এই অভিযান চালানো হোক।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *