ঠাকুরগাঁও সীমান্তে গুলিবিদ্ধ বাংলাদেশীর হাসপাতালে মৃত্যু !

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি : ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর (বিএসএফ) গুলিতে ঠাকুরগাঁওয়ের হরিপুর উপজেলার দক্ষিণ আমগাঁও খানপুর গ্রামের রেজাবুল ইসলাম (২৬) নামে এক যুবক নিহত হয়েছেন। এ ঘটনার ৮দিনে আগে জগদল সীমান্তে সাদেকুল ইসলাম সাজু (৪২) কে পিটিয়ে হত্যা করে বিএসএফ । তার বাড়ি ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলায় ।
স্থানীয়রা জানায়, রোববার ভোরে হরিপুর উপজেলার বেতনা-ডাবরি সীমান্ত পিলার নং-২৬৬ দিয়ে কয়েকজন যুবক ভারতে গরু আনতে যায়। এ সময় বিএসএফ তাদের লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। তখন অন্যরা পালিয়ে আসতে পারলেও রেজাবুল ইসলাম গুলিবিদ্ধ হন।
আমগাঁও ইউপি চেয়ারম্যান পাভেল তালুকদার নিশ্চিত করে বলেন উপজেলার বেতনা-ডাবরি সীমান্ত এলাকা দিয়ে আরও কয়েক জনের সঙ্গে ভারতে ঢোকার চেষ্টা করছিলেন রেজাবুল। এ সময় বিএসএফের গুলিতে আহত হয় সে।
নিহত রেজাবুলের বাবা বদরুল ইসলাম বলেন, তার ছেলে শনিবার বিকালে বাড়ি থেকে বের হয়ে গেলে আর ফিরেনি সে। রোববার সকালে রক্তাক্ত অবস্থায় বাড়ির সামনে তাকে পড়ে থাকতে দেখা যায় । পরে মাইক্রোবাস যোগে ঠাকুরগাঁও আধুনিক সদর হাসপাতালে নিয়ে আসা হয় । চিকিৎসাধীন অবস্থায় হাসপাতালে সকাল ১১টায় তার মৃত্যু হয় । সে পেশায় পাওয়ার টিলার চালক ।
ঠাকুরগাঁও আধুনিক সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. রকিবুল আলম বলেন,সকাল ১০টা ৫মিনিটে নিহত রেজাবুল মুর্মূষ অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি হয় । তার নাভির নিচে গুলির চিহ্ন ছিল । উন্নত চিকিৎসার জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে নেয়ার সময় তার মৃত্যু হয় ।
এ বিষয়ে ঠাকুরগাঁও পুলিশ সুপার মোহা. মনিরুজ্জামান বলেন ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে ।
উল্লেখ্য, গত বৃহস্পতিবার জেলার বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার জগদল সীমান্তে সাদেকুল ইসলাম সাজু (৪২) কে পিটিয়ে হত্যা করে বিএসএফ ।শনিবার দুপুরে হরিপুর উপজেলার মিনাপুর সীমান্তের জিরো লাইনে ভারতী নাগরিকের মরদেহ পড়েছিল । বিকালে ওই মরদেহ বিএসএফ ঘটনাস্থল থেকে নিয়ে যায় ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *